কঠিন পরিস্থিতিতে আপনার সুখ কে কিভাবে আবিষ্কার করবেন

শেয়ার করুন

জীবনে আমাদের এমন কিছু চ্যালেঞ্জ আসে যা আমাদের কে অনেক নিচে নামিয়ে দেয় আর আমাদের কে ভাল দিক গুলো নজরে আনতে ভুলিয়ে দেয়। কিন্তু আমাদের বন্ধু-বান্ধব আর পরিবারের সহায়তায় আমরা আবার উঠে দাড়াতে পাড়ি এবং জীবনে সুখের লক্ষ্যটাকে নির্ধারন করতে সক্ষম হই। আমাদের কে পজেটিভ হতে হবে এবং কৃতজ্ঞ থাকতে হবে আমাদের বর্তমান অবস্থানের জন্য।

 

“সুখ তৈরী কিছু না, এটা আপনার নিজের কর্মের থেকে আসে”

– দালাই লামা

 

মানুষের জীবনের সবচেয়ে আকাঙ্ক্ষিত বস্তুটি হল সুখ। যদি কাউকে প্রশ্ন করা হয় সে জীবনে কী চায় তাহলে সবচেয়ে যে উত্তরটা বেশি আসবে সেটা হল সুখ। সুখ সবসময় সবার প্রধান লক্ষ্য। আমরা যে যাই করছি না কেন; আমাদের উদ্দেশ্য একটাই আমরা সুখী হতে চাই।

 

একজন মাকে যদি জিজ্ঞেস করা হয় আপনি আপনার সন্তানের জন্য কী চান? উত্তরে অবশ্যই তিনি বলবেন সুখ চাই।

 

কিন্তু সুখ খুজে পাওয়া কি এতো সহজ? আমরা সবাই সুখী হতে চাই। কিন্তু আমাদের কতজন সুখী হতে পেরেছি বা সুখের দেখা পেয়ছি। সুখ খুবই চ্যালেঞ্জিং একটি বিষয়। কঠিন পরিস্থিতিও আপনি আপনার সুখ কে কিভাবে আবিষ্কার করবেন তা তুলে ধরা হলঃ

১। মেনে নেয়াঃ

 

দুঃখ কষ্ট, কঠিন পরিস্থিতি, ব্যর্থতা প্রায় সবার জীবনেই আছে। কিন্তু আমরা ক’জন এই বিষয়গুলো কে মেনে নিতে পারি? আপনার এমন হতে পারে যে আপনার ব্যবসায় অনেক ক্ষতি হয়ে গেল, আপনি পরীক্ষায় অকৃতকার্য হয়েছেন, আপনার চাকুরী চলে গিয়েছে কিন্তু একবার ভেবে দেখুন আপনার জীবন কিন্তু শেষ হয়ে যায় নি। এই চিন্তাটাই আমরা করি না। তাই যা হয়েছে সেটা কে মেনে নিন। তাতে আপনি এই পরিস্থিতিটা কে সহজেই জয় করতে পারবেন।

 

২। আপনাকে ভালবাসে এমন মানুষদের সাথে চলুনঃ

 

যারা আপনাকে ভালবাসে তাঁদের সাথে চলুন। তাঁদের উৎসাহ আপনাকে অনেক বেশি শক্তিশালী করে গড়ে তুলবে। তাঁদের একটি সাপোর্ট আপনাকে দুঃখ গুলো ভুলে যেতে সহায়তা করবে আর পুনরায় জীবনটা কে শুরু করতেও।

 

আপনাকে পজিটিভ চিন্তা করতে হবে। এমন কঠিন পরিস্থিতি আসাটা স্বাভাবিক ছিল এবং এটাই জীবনের নিয়ম। আপনি যদি বৃষ্টির পর শুধু কাদামাটির দিকে তাকান তাহলে সুন্দর রংধনো মিস করবেন।

 

৩। অন্যকিছুতে নিজে ব্যস্ত রাখুনঃ

সারাক্ষন বাসায় বসে থাকলে আর এটা নিয়ে চিন্তা করলে আপনার সমাধান আসবে না। দিনে দিনে আপনি আরো বেশি হতাশ হবে। পরিস্থিতি আরো খারাপ হয়ে উঠবে। জীবনটা তো আপনার; একটা কিছুতে হেরে গিয়েছেন বলে জীবনের সব কিছুতে কি আপনি হেরে গিয়েছেন? হয়ত আপনার জীবনে আরো ভাল কিছু অপেক্ষা করছে। আজই বের হন আপনার নতুন স্বপ্নের জন্য। এই সময়টায় নিজেকে ব্যস্ত রাখুন অন্য কিছুতে। জিমে যেতে পারেন, ব্যস্থতার জন অনেক সময় কাছের মানুষদের সাথে দেখা করতে পারেন নি, তাই তাঁদের সাথে দেখা করুন, কিছু ভাল বই পড়তে পারেন ইত্যাদি।

আরো পড়ুনঃ জেনে নিন রাগ কমানোর কার্যকরী পদ্ধতি গুলো

 

৪। হাসুন প্রান খুলেঃ

 

এই একটি বিষয় আমরা সবার আগে হারায় যখন আমরা কোন কষ্টের মধ্যে থাকি, আমরা কোন সমস্যার মধ্যে পড়ি। আপনার হাসি ফিরিয়ে আনুন। দেখবেন আপনার সুখ ফিরে এসেছে। আপনি হাসির গল্প পড়তে পারেন, কমেডি মুভি দেখতে পারেন, ফেইসবুকের অনেক পেইজ আছে ফলো করতে পারেন, আপনার যে বন্ধুটি আপনাকে অনেক বেশি হাসাতে পারে তার সাতে সময় কাটান ইত্যাদি। দেখবেন আপনার দুঃখ ক্রমেই কমতে থাকবে।

 

৫। ইতিবাচক চিন্তা করুনঃ

 

ইতিবাচক চিন্তার বিষয়টা বারবার ই আসে। প্রকৃতপক্ষেই এটা অনেক কার্যকর একটা বিষয়। আমরা অনেকেই এটি প্রেক্টিস করি তা না হলে আমরা সফল হতে পারতাম না। জীবনের কিছু কঠিন পরিস্থিতির কাছে আমরা যদি হেরে যায় তাহলে আমাদের সুখটা আসবে কিভাবে। এটাকে হতে দেয়া যাবে না। এই পরিস্থিতির এমন কিছু পজিটিভ দিক রয়েছে যা আপনি খুজে বের করুন যা আপনাকে একটি চমৎকার সমাধান বের করতে সাহায্য করবে। আপনি টক কে মিষ্টিতে পরিনত করুন।

 

৬। নিজেকে শান্ত রাখুনঃ

 

যখনই আপনার সময় গুলো অনেক সমস্যার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে আপনি নিজেকে শান্ত রাখুন। তাৎক্ষনিক আমাদের তা সমাধান করা অনেক সময় খুব কঠিন হয়ে পড়ে। তাই এই সময়টায় শান্ত থাকায় বদ্ধিমানের কাজ। তারপর চিন্তা করুন, কার সাথে পরামর্শ করুন সমস্যাটি নিয়ে। আশাকরি আপনি একটা ভাল সমাধান খুজে পাবেন। এবং সেই অনুযায় সামনে এগিয়ে যান।

 

৭। কৃতজ্ঞ থাকুনঃ

ইতিবাচক চিন্তার পাশাপাশি কৃতজ্ঞ থাকুন যে আপনি এখনো শেষ হয়ে যান নি। আপনার এখনো অনেক কিছু বিদ্যমান আছে যার মাধ্যমে আপনি আবার ঘুরে দাড়াতে পারবেন। আপনার চেয়ে আরো কত সমস্যার মধ্য দিয়ে মানুষ দিন পার করছে। আপনি তাঁদের চেয়ে ভাল আছেন। জীবনে আপনি যত সমস্যা আর অসুবিধার মধ্যে থাকুন না কেন আপনার সুখের সন্ধান যেন অব্যাহত থাকে।

 

 

জীবনের সাথে যুদ্ধ করে যায়। আপনি একজন সৈনিক, আপনি পিছিয়ে যাবেন না। হয়ত পড়ে যাবেন কিন্তু আবার উঠে দাঁড়াবেন। এটাই জীবন। জীবনের কিছু নিয়ম আছে আপনি সেগুলো কে বুঝতে শিখুন, প্রয়োজনে মুখস্থ করে নিন! দেখবেন আপনার সুখ আটকানোর কেউ থাকবে না।

 

ভাল থাকবেন সব সময়। সবার জীবন অনেক সুখী হউক। আর্টিকেলটি আপনাদের ভাল লেগে থাকলে শেয়ার করুণ। আর বিডি মোটিভেটর এর সাথে থাকুন।


শেয়ার করুন

Leave a Comment